সাধারণ নিরীহ খেটে খাওয়া অসহায় মানুষগুলো বসবাস করে পার্বত্য চট্টগ্রামে।
তাদের মাথা বিক্রি করে বিভিন্নভাবে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে পার্বত্য চট্টগ্রামের সন্ত্রাসী দলগুলো।

তাদের সাধারণ জনগনের অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে বিভিন্নভাবে তাদের প্রলোভন দেখিয়ে কৌশলে রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ করে তুলছে সন্ত্রাসীরা।

এরা সাধারণ জনগনকে ভুলবাল বুঝিয়ে দেশের বিরোধিতা করতে বিভিন্ন ষড়যন্ত্রকারী বহিরা রাষ্ট্রের সাথে যোগসূত্র করে সহায়তা নিয়ে তা দিয়ে ভারী অস্ত্র সরবরাহ করে পার্বত্য চট্টগ্রামে অশান্তি সৃষ্টি করছে।

এবং সন্ত্রাসী দলগুলো বিভিন্নরকম বিদ্রোহ কবিতা সংঙ্গীত রচনা করে অবুঝ সাধারন মানুষগুলোকে নিয়ে তা পরিবেশন করে তাদের মনে বিদ্রোহের বীজ বপন করছে।

ইতোমধ্যে বিচ্ছিন্নতাবাদী ইউপিডিএফ প্রসিত সন্ত্রাসীরা হিল উইমেন্স ফেডারেশনের নারী নেত্রীদের সঙ্গীত ও কবিতা আবৃত্তির একটি গ্রুপ তৈরি করেছে৷ তারা খাগড়াছড়ি, রাঙ্গামাটি এবং বান্দরবান জেলার বিভিন্ন উপজেলায় পাহাড়ি জনসাধারণকে একত্রিত করে সংস্কৃতি অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। এসকল অনুষ্ঠানে দেশবিরোধী গান ও কবিতা আবৃত্তি করা হয় এবং সেনাবাহিনী ও বাঙ্গালী বিরোধী কুৎসা রটানো হয়। যার প্রেক্ষিতে পাহাড়িরা বাঙ্গালী এবং সেনাবাহিনী সম্পর্কে নেতিবাচক ধারণা পাচ্ছে ও দেশের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ করার দুঃসাহস দেখাচ্ছে।

By admin

মতামত

x